Workers Protest in Bangladesh Today

বাংলাদেশে বেতন-ভাতার দাবিতে শ্রমিক বিক্ষোভ

বাংলাদেশ

বকেয়াসহ চলতি মাসের বেতন ও বেসিকের সমান উৎসব ভাতা ঈদের আগে পরিশোধ (Protest in Bangladesh) চাইছে মানুষ। করোনার কারণে সরকার ঘোষিত …

বাংলাদেশের সার্বিক পরিস্থিতি একেবারেই মঙ্গলজনক নয়। প্রতিদিনই বাড়ছে সংক্রমণের সংখ্যা। বিদেশ থেকেও একাধিক মানুষ ঘরে ফিরছে। অর্থনৈতিক সংকট হচ্ছে। এরমধ্যে চলছে পবিত্র রমজান মাস। বকেয়াসহ চলতি মাসের বেতন ও বেসিকের সমান উৎসব ভাতা ঈদের আগে পরিশোধ (Protest in Bangladesh) চাইছে মানুষ।

বিক্ষোভ সমাবেশ

করোনার কারণে সরকার ঘোষিত নগদ অর্থ ও খাদ্য সামগ্রী সহায়তা নিশ্চিত করার দাবি জানিয়েছে ঢাকা জেলা ট্যাক্সি, ট্যাক্সি কার, অটো টেম্পু, অটোরিকশা চালক শ্রমিক ইউনিয়ন। বাংলাদশে এই করোনার আবহাওয়ায় এটি একেবারেই অন্য দৃষ্টান্তের। আজ সোমবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে অনুষ্ঠিত বিক্ষোভ সমাবেশ থেকে এই দাবি জানানো হয়।

বাংলাদেশ কি এবার হার্ড ইমিউনিটির পথে!আরও জানতে ক্লিক করুন …

সংগঠনের সহ-সভাপতি বিরেশ চন্দ্র দাসের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য দেন সাধারণ সম্পাদক আহাসান হাবিব বুলবুল, সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্টের সাংগঠনিক সম্পাদক খালেকুজ্জামান লিপন ও কোষাধ্য জুলফিকার আলী, ইউনিয়নের সহ-সম্পাদক আলমগীর হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক হাবিবুর রহমান হাবিব এবং সংগঠক ফজলুল হক শাহীন, মোহাম্মদ ফোরকান ও আব্দুল করিম।

পবিত্র উৎসব পালনের অধিকার

সেখান থেকেই জানানো হয়, পবিত্র উৎসব পালনের অধিকারের মতোই সারা বছরের কাজের ধারাবাহিকতায় উৎসব ভাতা পাওয়া বাংলাদেশের সকল শ্রমিকের অধিকার। এবং এমনিতেই কাজের দরজা অনেকটাই বন্ধ।কিন্তু প্রাইভেট কার-মাইক্রোবাস চালকসহ হালকা যানবাহন চালকদের জন্য শ্রমআইন স্বীকৃত অধিকার বাস্তবায়ন করা হয়নি।

বাংলাদেশে নগদ অর্থ পাবে ৫০ লাখ দরিদ্র পরিবার – আরও জানতে ক্লিক করুন …

ফলে সারা বছর কাজ করানোর পর কেবল উৎসব ভাতা না দেওয়ার জন্য গাড়ি চালকদের ছাঁটাই করা হয়। এখন ছাঁটাই বন্ধ এবং সকল গাড়িচালককে রেশন কার্ডের তালিকাভুক্তির দাবি জানান। এছাড়া ঈদের আগে খাদ্য সামগ্রী ও নগদ সহায়তা সরবরাহের দাবি জানানো হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *