Dispute Over Selling of Liquor in Bengal Under BEVCO During Lockdown

Liquor in Bengal: রাজ্যে অনলাইন মদ নিয়ে জটিলতা

কলকাতা

পশ্চিমবঙ্গে খোলাবাজারে মদ (Liquor in Bengal) পাওয়া না-পাওয়া নিয়ে নতুন করে জটিলতা তৈরি হয়েছে। ২১শে মার্চের পর দিনই, খুলেছে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য …

সুরায় আসুরিক সমস্যা। করোনার মধ্যে মদের অনলাইন অন হওয়া নিয়ে জটিলতা বেড়েছে। পশ্চিমবঙ্গে খোলাবাজারে মদ (Liquor in Bengal) পাওয়া না-পাওয়া নিয়ে নতুন করে জটিলতা তৈরি হয়েছে। ২১শে মার্চের পর দিনই, খুলেছে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য পানীয় নিগম বা ‘বেভকো’। বেভকো-র অর্ডার নেওয়া শুরু করার অর্থই হল, অনলাইনের মাধ্যমে হোম ডেলিভারিতে হাতে আসছে পছন্দের মদ। কিন্তু জাতীয় নির্দেশিকায় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক জানিয়ে দিয়েছে, মদ বিক্রি কঠোর ভাবে নিষিদ্ধ। এদিকে সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে মদের হোম ডেলিভারির বিজ্ঞাপনের ফাঁদ পাতা। যাতে পা দিলেই ব্যাংকে রাখা টাকা ফাঁকা হয়ে যাবে।

জুন মাসে উচ্চমাধ্যমিকের বাকি পরীক্ষা – আরও জানতে ক্লিক করুন …

বেভকো-র সরবরাহ করা মদ গাড়িতে করে আনা হলেও সেই পানীয় রাখার ক্ষেত্রে সমস্যা দেখা দেবে। কারণ, বহু দোকানের মধ্যেই রয়েছে মদের গুদাম। ফলে মদ ভর্তি গাড়ি দোকান বা গুদামের সামনে দাঁড়ালে লুঠপাট, হামলার আশঙ্কাও করছেন ব্যবসায়ীরা। অন্যদিকে পুলিশ জানাচ্ছে, মদ বিক্রি করতে দেওয়ার তো প্রশ্নই নেই, তা ছাড়া, লিখিত নির্দেশ না-পেলে মদ আনলোডিংয়ের সময়ে দোকান বা গুদাম পাহারা দেবেন না। সেই সময়ে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি দেখলে সঙ্গে সঙ্গে দোকান বা গুদাম বন্ধ করে দেওয়া হবে।

রাজ্যে ৭ হাজার মামলা ও ১৬ হাজার গ্রেপ্তার – আরও জানতে ক্লিক করুন …

এদিকে ফেসবুক জুড়ে মদের হোম ডেলিভারির বিজ্ঞাপনে ছেয়ে গিয়েছে। অনেকেই সেই টোপে পা দিয়ে ফেলছেন। ফেসবুকের ওই বিজ্ঞাপন থেকে নম্বর নিয়ে সেইসব সংস্থার সঙ্গে যোগাযোগ করলেই টাকা হাওয়া। রাজ্য প্রশাসনের পক্ষ থেকে এই ফোন নম্বরগুলি ট্রেস করা হচ্ছে। সেই নম্বরের কোন এলাকায় রয়েছে, তা জানার পরই ব্যবস্থা নেওয়া হবে। সাধারণ মানুষকে সতর্ক করে পুলিশকর্তারা বলছেন, এধরনের কোনও গুজবে কান না দিতে। বরং বর্তমানের পরিস্থিতিতে সাবধানে থাকার আবেদন জানানো হয়েছে।

প্যারা মিলিটারি ফোর্স নামানোর পক্ষে সওয়াল করেছেন রাজ্যপাল – আরও জানতে ক্লিক করুন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *