UAPA Bill 2019 Passed in Rajya Sabha

UAPA Bill 2019 লোকসভার পর পাস হল রাজ্য সভায়

কলকাতা

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, সন্ত্রাসের সঙ্গে লড়াই করাই এই আইনের (UAPA Bill 2019) উদ্দেশ্য। এর পেছনে অন্য কোনও কারণ নেই।

কিছুদিন আটকে থাকার পর আজ শুক্রবার ভোটাভুটির জন্য রাজ্যসভায় আনা হয় এক গুরুত্বপূর্ন বিল। লোকসভার পর রাজ্যসভাতে পাস হয়ে গেল ইউএপিএ সংশোধনী বিল (UAPA Bill 2019)। বিলের পক্ষে ভোট পড়ে ১৪৭ এবং বিপক্ষে পড়ে ৪২টি। সংসদের সিলেক্ট কমিটিতে যাওয়ার বিষয়টিও রাজ্যসভায় খারিজ হয়ে যায়। তাই এখন থেকে সন্ত্রাসে জড়িত কোনও ব্যক্তিকে জঙ্গি তকমা দেওয়া যাবে।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ জানান, ‘‘সন্ত্রাসের কোনও ধর্ম হয় না। সন্ত্রাসবাদীরা মানবতা বিরোধী। তাই তাদের বিরুদ্ধে কড়া আইনে সমর্থন জানানো উচিত আমাদের সকলের।’’এ বার রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ, স্বাক্ষর করলেই এটি দেশের গুরুত্বপূর্ণ আইনে পরিণত হবে। সন্দেহের বশে কোনও ব্যক্তিকেও সন্ত্রাসবাদী তকমা দিয়ে গ্রেফতার করা যাবে সহজেই।

এই প্রসঙ্গে একবার পি চিদম্বরম বলেন, কোনও সংগঠনকে যখন নিষিদ্ধ ঘোষণা করার সুযোগ রয়েছে তখন কোনও ব্যক্তিকে জঙ্গি ঘোষণা কেন? এর উত্তরে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, সন্ত্রাসের সঙ্গে লড়াই করাই এই আইনের [ Unlawful Activities (Prevention) Act ] উদ্দেশ্য। এর পেছনে অন্য কোনও কারণ নেই। কোনও সংগঠনকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করে দিলেই সমস্যার সমাধান হয় না। একটা জঙ্গি সংগঠন নিষিদ্ধ করে দিলে অন্য একটি গজিয়ে যায়। তার মাথা হয়ে যায় আগের সংগঠনের প্রধান।কোনও ব্যক্তিকে জঙ্গি তকমা দিলে সমস্যার অনেকটাই সমাধান হবে।

বিলের পক্ষে ভোট পড়ে ১৪৭ এবং বিপক্ষে পড়ে ৪২টি। সংসদের সিলেক্ট কমিটিতে যাওয়ার বিষয়টিও রাজ্যসভায় খারিজ হয়ে যায়। তাই এখন থেকে সন্ত্রাসে জড়িত কোনও ব্যক্তিকে জঙ্গি তকমা দেওয়া যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *