রাজীব কুমারকে জেরা করতে শিলং নিয়ে যাওয়া হলো

শহরে সিবিআইয়ের ক্র্যাক টিম – রাজীব কুমারকে জেরা করতে শিলং নিয়ে যাওয়া হলো

পশ্চিমবঙ্গ

আজ আরো প্রস্তুতি নিতে শহরে এসে পৌঁছল সিবিআইয়ের বিশেষ দল।

গুছিয়ে কাজ সারতে নেমেছে সিবিআই দপ্তর| গত কয়েকদিন ধরে, কেন্দ্রীয় সিবিআই ও রাজ্যের পুলিশের হাতাহাতি, আইনি সংঘাত খবরের শীর্ষে ছিল| গোটা দেশ তাকিয়ে ছিল, সুপ্রিমকোর্টের রায়ের দিকে| সাময়িক দুই পক্ষের স্বস্তি এলেও, চাপ বাড়াতে তৈরী হচ্ছে সিবিআই দপ্তর| বেআইনি অর্থলগ্নিতে পুলিশ সুপার রাজীব এখন তাদের প্রধান অস্ত্র| তাই আজ আরো প্রস্তুতি নিতে শহরে এসে পৌঁছল সিবিআইয়ের বিশেষ দল।

শুক্রবার সকাল সাড়ে ন’টা নাগাদ দিল্লি থেকে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দাদের ওই বিশেষ বাহিনী কলকাতা বিমান বন্দরে এসে পৌঁছয়। সেখান থেকে তাঁরা সোজা সিজিও কমপ্লেক্সের উদ্দেশ্যে রওনা দেন। বৃহস্পতিবারই সিবিআই অধিকর্তা ঋষিকুমার শুক্লের নির্দেশে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে বাছাই করা সেরা দশ জন আধিকারিককে নিয়ে একটি বিশেষ দক্ষ দল গঠন করা হয়।

এই সমৃদ্ধ দলটি আগামী ২০ তারিখ পর্যন্ত সারদা-রোজভ্যালি-সহ চিট ফান্ড তদন্তের দায়িত্বে থাকা সব তদন্তকারী আধিকারিকদের তদন্তে পূর্ণাঙ্গভাবে সহযোগিতা করবেন। এই দলে থাকা আধিকারিকদের বেশ কয়েক জন শিলংয়ে যাবেন রাজীব কুমারকে সামনে থেকে জেরা করতে।

ওই বিশেষ দলে রয়েছেন একজন এসপি পদমর্যাদার আধিকারিক, তিন জন অতিরিক্ত এসপি, তিন জন ডিএসপি এবং তিন জন ইনস্পেক্টর পদমর্যাদের অফিসার। জানা যাচ্ছে, রাজীব কুমারকে যাঁরা জেরা করবেন, শুক্রবারই তাঁরা শিলং পৌঁছে যাচ্ছেন। কলকাতার নগরপালকে শনিবার শিলংয়ে হাজিরা দিতে বলা হয়েছে ।

বিমানবন্দর সূত্রে খবর, শুক্রবার দুপুরের বিমানে তাঁরা শিলং যাচ্ছেন। সেই দলে থাকছেন পূর্বাঞ্চলীয় অধিকর্তা পঙ্কজ শ্রীবাস্তব ও সারদা তদন্তের বর্তমান তদন্তকারী আধিকারিক তথাগত বর্ধনও। ওই দলেই দিল্লি থেকে আসা দলের কয়েক জন যোগ দেবেন। শিলংয়ে বেশ কয়েক দিন ধরে চলতে পারে এই জেরা পর্ব। আগামী গোটা সপ্তাহ ধরে চলবে এই জেরা। কারণ রাজীব কুমার ছাড়াও শিলংয়ে প্রাক্তণ সাংসদ কুণাল ঘোষ, সারদের এক প্রাক্তন ডিরেক্টর, এক তৃণমূল ছেড়ে যাওয়া নেতা এবং এক প্রাক্তন পুলিশ কর্তাকে পর্যাপ্ত সময় নিয়ে শিলং যেতে বলা হয়েছে।

২০১৩ সালের এপ্রিলে ১৪ হাজার কোটি রুপির সারদা দুর্নীতির ঘটনা ফাঁস হওয়ার পর কুনাল ঘোষ দাবি করেছিলেন, সারদার বিভিন্ন নথি রাজ্য পুলিশের কর্মকর্তারা নষ্ট করেছেন। তাই সারদার বিভিন্ন নথি নিয়ে যাঁরা ওয়াকিবহাল, সিবিআই তাঁদেরও ডাকার উদ্যোগ নিয়েছে।

সিবিআই থেকে জানা যাচ্ছে ,পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমারকে জেরা করার জন্য সিবিআই শতাধিক প্রশ্নের একটি কড়ামাপের লিস্ট তৈরি করেছে। সত্য তথ্য উদ্ধারে নেমে, কোনো ভাবেই যেন রাজীবকুমার সেখান থেকে বেরিয়ে আসতে না পারেন| তাই এই প্রশ্ন নিয়ে সিবিআই কর্মকর্তারা তাঁদের আইনজীবীদের সঙ্গে আলোচনায় বসেছেন । তবে কুনাল ঘোষের উপস্থিতি, এই জেরাকে আরো গতিময় করে তুলতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে|

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *