West Bengal Govt will Distribute 1 Crore Hybrid Saplings

রাজ্যে ১ কোটি উচ্চ ফলনশীল চারাগাছ বিলি

পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের খবর

এখন দেশে বর্ষার পর্ব চলছে। সবুজ গাছ তৈরির (Hybrid Saplings) সঠিক সময়। করোনা ও লকডাউনের জন্য সঙ্কটে কৃষি ও কৃষক। এই পরিস্থিতিতে …

নিজস্ব সংবাদদাতা: সম্প্রতি আমফান সাইক্লোনে রাজ্যের কয়েকটি জেলাতে প্রচুর গাছ নষ্ট হয়েছে। তীব্রই ঝড়ের দাপটে সুন্দরবনের ম্যানগ্রোভ অরণ্য বিনষ্ট হয়েছে। প্রকৃতির ভারসাম্য বিঘ্ন হতে চলেছে। এখন দেশে বর্ষার পর্ব চলছে। সবুজ গাছ তৈরির (Hybrid Saplings) সঠিক সময়। করোনা ও লকডাউনের জন্য সঙ্কটে কৃষি ও কৃষক। এই পরিস্থিতিতে এগিয়ে এসেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। স্বল্প সময়ে উচ্চ ফলনশীল ফল ও সব্জি উৎপাদন করতে চায় সরকার। তাই রাজ্যের কৃষকের আয় নিশ্চিত করতে নতুন প্রকল্প অন্য নবান্ন।

West Bengal Govt will Distribute 1 Crore Hybrid Saplings
West Bengal Govt will Distribute 1 Crore Hybrid Saplings

৩৮ কোটি টাকার প্রকল্পের মাধ্যমে ১০ লক্ষ চাষির হাতে উন্নত প্রজাতির ১ কোটি চারাগাছ তুলে দেওয়া হবে। এই প্রকল্পে বিভিন্ন ফল গাছের সাথে দেওয়া হবে কিছু মশলার গাছের চারা। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত ও বিদেশ থেকে আনা হচ্ছে এই বিশেষ গোত্রের উন্নত চারা। বিকল্প চাষের সন্ধান দিতে চাইছে রাজ্যের খাদ্য প্রক্রিয়াকরণ ও উদ্যান পালন দপ্তর। জুলাই মাস থেকেই রাজ্যজুড়ে এই উচ্চ ফলনশীল চারা ফ্রি বিলি করা শুরু হচ্ছে। আগামী আগস্টের মধ্যে এই সব ছাড়া বিলি শেষ হবে। চারা বিলির সাথে উদ্যান পালন বিভাগের বিশেষজ্ঞরা এই সব গাছের পরিচর্যা শেখাবেন।

[ আরও পড়ুন ]  পাঞ্জাবের তিন জেলায় বিষ মদে মৃত ৩২জন

কিন্তু এই চারা কজন প্রকৃত কৃষকের কাছে পৌঁছাবে? বিলি করা চারাগাছ বা যে চারাগুলি পোঁতা হয় বিভিন্ন সরকারি কর্মসূচিতে, তার মধ্যে কতগুলি বাঁচে? তাদের আয়ুই বা কত দিন? সে সম্পর্কে ধারণা নেই রাজ্যবাসীর। সেই সমীক্ষার কোনো ব্যবস্থা নেই। ফলে চারাগাছ বিলি হয় নিয়মমাফিক। আর তা পৌঁছায় পরিচিত দাদা দিদিদের হাতে।

[ আরো পড়ুন ] ৪০ পার হলেই জায়গা নেই – Trinamool Youth Congress

আজ দপ্তর সূত্রে জানানো হয়েছে , ৩ থেকে ৭ মাসের মধ্যে ফল দেয়, এমন উন্নত প্রজাতির চারা বিতরণ করা হবে। কলা, আম, পেয়ারা, আতা, বেদানা, কমলালেবু, লিচু, কাজুবাদাম, এলাচ, গোলমরিচ, দারিচিনি সহ একাধিক গাছের চারা বিলির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে খবর। আধুনিক পদ্ধতিতে চাষের প্রবণতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে রাজ্য সরকার পলি হাউস গড়তে ৫০ শতাংশ টাকা ভর্তুকি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *