Arati Saha who was the first Asian woman to swim across the English channel

Arati Saha: প্রথম ভারতীয় মহিলা ইংলিশ চ্যানেল পার করেছিলেন

ইতিহাস

মহিলাদের আত্মসম্মান ও সমঅধিকার নিয়ে যখন আমরা বিতর্ক করি, তখন প্রথমেই আসে আরতি সাহার (Arati Saha) নাম। প্রচন্ড জেদি এই মহিলা প্রথম …

নিজস্ব প্রতিবেদন: সাঁতারের দুনিয়ায় ভারত তথা সমগ্র এশিয়ার নাম উজ্জ্বল করেছিলেন তিনি। মহিলাদের আত্মসম্মান ও সমঅধিকার নিয়ে যখন আমরা বিতর্ক করি, তখন প্রথমেই আসে আরতি সাহার (Arati Saha) নাম। প্রচন্ড জেদি এই মহিলা প্রথম এশীয় ও ভারতীয় মহিলা হিসাবে ১৯৫৯ সালে পার করেছিলেন ইংলিশ চ্যানেল। গোটা বাংলা তথা ভারতের মুখ উজ্জ্বল করেছিলেন বিশ্বের দরবারে। সেই বাঙালি অলিম্পিয়ান সাঁতারু আরতি সাহার আজ ৮০ তম জন্মদিন। জন্মদিনে ডুডলে আরতিকে স্মরণ করল গুগলও। ভুলে যায়নি তার দেশ ও রাজ্য। সম্মান জানালেন মুখমন্ত্রী ও প্রধানমন্ত্রী।

[ আরো পড়ুন ]  Purba Dam: প্রয়াত কিংবদন্তি রবীন্দ্রসংগীত শিল্পী পূর্বা দাম

স্বাধীনতার আগে ১৯৪০ সালের ২৪ সেপ্টেম্বর কলকাতা শহরে জন্ম আরতি সাহার। বাবা পাঁচুগোপাল সাহা চাকরি করতেন সেনা বিভাগে। মাত্র আড়াই বছর বয়সে হারিয়েছিলেন মাকে। চার বছর বয়স থেকেই কাকা বিশ্বনাথের সঙ্গে প্রতি দিন চাঁপাতলার ঘাটে স্নান করতে যেতেন আরতি। জলের নেশা তখন থেকেই। মেয়ের উৎসাহ দেখে বাবা তাঁকে হাটখোলা সুইমিং ক্লাবে ভর্তি করে দেন। শুনলে অবাক হবেন সেই সময় তিনিই ছিলেন একমাত্র ভারতীয় মহিলা সাঁতারু। এক বছর পর শৈলেন্দ্র মেমোরিয়াল সাঁতার প্রতিযোগিতায় ১১০ গজ ফ্রি-স্টাইলে প্রথম হন আরতি। গুরু শচীন নাগের সাথে সেই ভব্য পুরস্কার আনতে গিয়েছিলেন আরতি।

Arati Saha who was the first Asian woman to swim across the English channel
Arati Saha who was the first Asian woman to swim across the English channel

তবে, ইংলিশ চ্যানেল পার করবার চ্যালেঞ্জ নিতে গিয়ে আর্থিক প্রতিবন্ধকতার মুখে পড়েছিলেন আরতি। কিন্তু, তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহেরু তাঁর ইংল্যান্ড যাওয়ার ব্যবস্থা করতে এগিয়ে আসেন। ১৯৫৯ সালের অগস্টে মাত্র ১৯ বছর বয়সে আরতি নামেন বিপদসঙ্কুল ইংলিশ চ্যানেল পার করতে। কিন্তু, অদম্য জেদ ও মানসিক শক্তি থাকা সত্ত্বেও, প্রথম প্রচেষ্টায় বিভিন্ন প্রতিবন্ধকতার কাছে হার মানতে বাধ্য হন তিনি । কিন্তু একরোখা, জেদি এই মেয়েটি, পরের মাসেই ২৯ সেপ্টেম্বর প্রথম এশীয় মহিলা হিসাবে ইংলিশ চ্যানেল পার করে নজির সৃষ্টি করেন। এরপর তিনি উঁঠে আসেন সমগ্র আন্তর্জাতিক খবরের শিরোনামে।

[ আরো পড়ুন ] প্রয়াত ফ্যাশন ডিজাইনার শর্বরী দত্ত – ময়না তদন্তের রিপোর্ট

ইংলিশ চ্যানেল জয়ের পরের বছরই তাকে ‘পদ্মশ্রী’ সন্মানে ভূষিত করেন ভারত সরকার। ভারতের প্রথম মহিলা ক্রীড়াবিদ হিসাবে এই পুরস্কার পান। জটিল রোগাক্রান্ত হয়ে ১৯৯৪ সালের ২৩ অগস্ট আমাদের ছেড়ে পরলোকে গমন করেন তিনি ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *