Suchitra Sen was an Indian film actress who worked in Bengali and Hindi cinema

Suchitra Sen: অভিনেত্রী সুচিত্রা সেন

ইতিহাস বিনোদন

সুচিত্রা সেন (Suchitra Sen) একজন ভারতীয় অভিনেত্রী ছিলেন। জন্মগত নাম ছিল রমা দাশগুপ্ত। তিনি মূলত বাংলা ও হিন্দি চলচ্চিত্রে অভিনয় করে খ্যাতি …

সুচিত্রা সেন (Suchitra Sen) একজন ভারতীয় অভিনেত্রী ছিলেন। জন্মগত নাম ছিল রমা দাশগুপ্ত। তিনি মূলত বাংলা ও হিন্দি চলচ্চিত্রে অভিনয় করে খ্যাতি অর্জন করেছিলেন। বাংলা চলচ্চিত্রের কিংবদন্তি নায়িকা পাবনার মেয়ে সুচিত্রা সেনের ষষ্ঠ প্রয়াণ দিবস আজ শুক্রবার। ২০১৪ সালের এই দিনে ১৭ই জানুয়ারী, না ফেরার দেশে পাড়ি জমান তিনি। তাঁর প্রয়াণ দিবস পালনে সুচিত্রা সেনের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাঞ্জলি, স্মরণ পদযাত্রা, আলোচনাসভাসহ নানা কর্মসূচি নিয়েছে গোটা রাজ্য। সুচিত্রা সেনের শৈশব-কৈশোরের একটি অংশ কেটেছে পাবনা শহরের গোপালপুর এলাকার হেমসাগর লেনের পৈতৃক বাড়িতে। দেশ ভাগের আগে সুচিত্রা সেনের বাবা করুণাময় দাসগুপ্ত সপরিবারে কলকাতায় চলে যান।

Suchitra Sen was an Indian film actress who worked in Bengali and Hindi cinema
Suchitra Sen was an Indian film actress who worked in Bengali and Hindi cinema

১৯৩১ সালের ৬ এপ্রিল ব্রিটিশ ভারতের বাংলা প্রেসিডেন্সির পাবনা জেলার সদর পাবনায় সুচিত্রা সেন জন্মগ্রহণ করেছিলেন। তার বাবা করুণাময় দাশগুপ্ত ছিলেন এক স্থানীয় বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও মা ইন্দিরা দেবী ছিলেন গৃহবধূ। তিনি ছিলেন পরিবারের পঞ্চম সন্তান ও তৃতীয় কন্যা। ১৯৫২ সালে শেষ কোথায় ছবির মাধ্যমে তার চলচ্চিত্রে যাত্রা শুরু হয় কিন্তু ছবিটি মুক্তি পায়নি।উত্তম কুমারের বিপরীতে সাড়ে চুয়াত্তর ছবিতে তিনি অভিনয় করেন। ছবিটি বক্স-অফিসে সাফল্য লাভ করে এবং উত্তম-সুচিত্রা জুটি আজও স্মরণীয় হয়ে আছে। বাংলা ছবির এই অবিসংবাদিত জুটি পরবর্তী ২০ বছরে ছিলেন অপ্রতিদ্বন্দী।

The Iconic Reel Couple Uttam-Suchitra
The Iconic Reel Couple Uttam-Suchitra

১৯৫৫ সালের দেবদাস ছবির জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর পুরস্কার জিতেন, যা ছিল তার প্রথম হিন্দি ছবি। উত্তম কুমারের সাথে বাংলা ছবিতে রোমান্টিকতা সৃষ্টি করার জন্য তিনি বাংলা চলচ্চিত্রের সবচেয়ে বিখ্যাত অভিনেত্রী। ১৯৬০ ও ১৯৭০ দশকে তার অভিনীত ছবি মুক্তি পেয়েছে। ১৯৬৩ সালে সাত পাকে বাঁধা চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য মস্কো চলচ্চিত্র উৎসবে সুচিত্রা সেন “সিলভার প্রাইজ ফর বেস্ট অ্যাকট্রেস” জয় করেন। তিনিই প্রথম ভারতীয় অভিনেত্রী যিনি কোনো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে পুরস্কৃত হয়েছিলেন। ১৯৭২ সালে ভারত সরকার তাকে পদ্মশ্রী সম্মান প্রদান করে।১৯৭৮ সালে সুদীর্ঘ ২৫ বছর অভিনয়ের পর তিনি চলচ্চিত্র থেকে অবসরগ্রহণ করেন। এর পর তিনি লোকচক্ষু থেকে আত্মগোপন করেন এবং রামকৃষ্ণ মিশনের সেবায় ব্রতী হন। তাঁকে প্রণাম জানাই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *