ভূমিকম্পে কাঁপল দক্ষিণ ভারতে বিস্তীর্ণ অঞ্চল

ভূমিকম্পে কাঁপল দক্ষিণ ভারতে বিস্তীর্ণ অঞ্চল

ভারতবর্ষ

আমাদের ভারতবর্ষকে প্রকৃতি বেশ সময় নিয়ে, যত্ন করে গড়েছেন|

প্রকৃতি যে ক্রমশ সহ্য ক্ষমতার বাইরে চলে যাচ্ছে, তা বারবার দেখিয়ে দিচ্ছে| আমাদের ভারতবর্ষকে প্রকৃতি বেশ সময় নিয়ে, যত্ন করে গড়েছেন| বরফের পাহাড়, বালির মরুভূমি, নোনা জলের তিন-তিনটি সমুদ্র, বিস্তীর্ণ সবুজে ঘেরা যদি মাত্রিক স্থলভূমি নিয়ে “মেরা ভারত মহান”| কিন্তু লাগামছাড়া বিভিন্ন গোত্রের দূষণে, সেই চেনা- কোমল প্রকৃতি আজ বাসভূমি ধ্বংস করতে উদ্যত| অসহায়তার আর্তিতে ভোরে উঠবে চারপাশ|

আর সেই আতঙ্কের প্রাকৃতিক বিভীষিকার নাম ভূমিকম্প| আজ সেই ভয়ের ভূমিকম্পে কাঁপল দক্ষিণ ভারতে বিস্তীর্ণ অঞ্চল। রিখটার স্কেলে ভূকম্পনের মাত্রা ছিল ৪.৯ – ৫.১ । ভূমিকম্প বেশ কয়েক সেকেন্ড স্থায়ী হয়। তবে এখনো পর্যন্ত ক্ষয়ক্ষতির কোনও খবর পাওয়া যায়নি। এই ভূমিকম্পের বেশিরভাগটাই বঙ্গোপসাগরের গভীরে আঘাত করে বলে ইউএস জিওলজিক্যাল সার্ভে সূত্রে খবর। অকাম্য এই ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল ছিল সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে প্রায় ১০ কিমি নিচে। চেন্নাই থেকে ভূমিকম্পস্থলের দূরত্ব প্রায় ৬০৯ কিমি বলে জানা যাচ্ছে ।

গতকাল রাত দেড়টা নাগাদ এই ভূমিকম্প আঘাত করে। তার আগে মূলত আন্দামান নিকোবর অঞ্চলে ভূমিকম্প অনুভূত করা গেছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভূমিকম্পের বিষয়টি নিয়ে ভীত বোধ করছেন বলে জানিয়েছেন চেন্নাইয়ের বাসিন্দারা। অনেকেই মনে করেছেন ২০০৪ -এর সুনামি কিংবা ২০০২-এ গুজরাতের ভূজের ভূমিকম্পের তীব্রতার কথা।
ভূমিকম্পের আতঙ্কের জেরে রাতেই দিশাহারা হয়ে পড়েন অগণত মানুষ| কোনোমতে ঘুম চোখে, সবাইকে নিয়ে বাড়ি ছেড়ে বেড়িয়ে আসে বহু মানুষ ৷

জানা গেছে, গত ১০ দিনে পূর্ব ভারত প্রায় ৮ বার ভূমিকম্পে কেঁপে উঠেছে ৷ আবার উত্তর ভারতে চারবার ভূমিকম্প হয় ৷ আজ দক্ষিণ ভারতের ভূমিকম্প বৈজ্ঞানিকদের ভাবিয়ে তুলেছে| একটানা একাধিক ভাবে দেশের চারপাশ ও সমুদ্রের নিচ যে ভাবে কেঁপে উঠছে, তাতে নিকট আগামীতে বড়ো কোনো ভূমিকম্পনের আঘাত আসতেই পারে|

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *