Indian army to buy anti tank guided missiles from Israel

ইজরায়েল থেকে স্পাইক অ্যান্টি ট্যাঙ্ক ক্ষেপণাস্ত্র কিনছে ভারত

ভারতবর্ষ

ভারতীয় সেনাবাহিনী সীমান্তে আরো শক্তি বাড়াতে এবার ইসরায়েল থেকে স্পাইক অ্যান্টি ট্যাঙ্ক ক্ষেপণাস্ত্র (Anti tank guided missiles) কিনছে। তাই করোনা …

নিজস্ব সংবাদদাতা: লাদাখ কান্ড ভারতকে অনেকটা সামরিক শিক্ষিত করেছে। বিগত কয়েক মাস ধরেই দেশের একাধিক সীমান্ত সমস্যার মধ্যে আছে। হামলা, দখল ও হুমকির নানা বহর সহ্য করতে হচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকারকে। তাই করোনা আবহাওয়াতে দেশের প্রতিরক্ষা দপ্তর সেনাবাহিনীকে আধুনিক সজ্জায় সাজাতে চাইছে। মূলত চীন ও পাকিস্তানকে ঘিরেই তৈরী হয়েছে জল্পনা। ভারতীয় সেনাবাহিনী সীমান্তে আরো শক্তি বাড়াতে এবার ইসরায়েল থেকে স্পাইক অ্যান্টি ট্যাঙ্ক ক্ষেপণাস্ত্র (Anti tank guided missiles) কিনছে।

এই নিয়ে ভারত দ্বিতীয়বার ইসরায়েল থেকে স্পাইক ক্ষেপণাস্ত্র কিনছে। ভারতের সেনাবাহিনীর সূত্রে জানা যাচ্ছে, ১২টি স্পাইক লঞ্চার এবং ২০০টির বেশি ক্ষেপণাস্ত্রের অর্ডার ইসরায়েলকে দেওয়ার প্রস্তাব গৃহীত হয়েছে।

Indian army to buy anti tank guided missiles from Israel
Indian army to buy anti tank guided missiles from Israel

গত বছর বালাকোটে প্রত্যাঘাতের পর একই পরিমাণ ক্ষেপণাস্ত্র এবং লঞ্চার কেনা হয়েছিল। সেইসব লঞ্চার এবং ক্ষেপণাস্ত্র পাকিস্তান সীমান্তের কাছে মজুত করে সেনাবাহিনী। এবার চীনের বিরুদ্ধে ব্যবহারের ভাবনা তৈরী হয়েছে। কারণ, ড্রাগন বাহিনী পূর্ব লাদাখের একাধিক জায়গাতে বিপুল পরিমাণে অস্ত্র মজুত করেছে।

[ আরও পড়ুন ] সেনা ৭২০০০ সিগ-৭১৬ অ্যাসাল্ট রাইফেল কিনছে

ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার প্রস্তুতির জন্য সেনাবাহিনীকে ৫০০ কোটি টাকা ব্যয়ের ক্ষমতা দিয়েছে। এই স্পাইক মিসাইল ব্যবহার করে। এগুলি ভূমি, আকাশ ও সমুদ্র থেকে উৎক্ষেপণ করা সম্ভব। ৩০ কিলোমিটার দূরে গিয়ে আঘাত করতে পারে এই মিসাইল। আগেই ইসরায়েল থেকে জরুরি প্রয়োজনে ২৪০টি স্পাইক মিসাইল আনে ভারতীয় সেনা। স্পাইক মিসাইল মূলত অ্যান্টি ট্যাঙ্ক অপারেশনে ব্যবহার হলেও এই শক্তিশালী মিসাইল জঙ্গিদের লুকিয়ে থাকার বাঙ্কার ধ্বংস করতে সক্ষম।

[ আরও পড়ুন ] বায়ুসেনার হাতে ২২টি Apache ও ১৫টি Chinook যুদ্ধবিমান

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *