12th of October Known for World Arthritis Day

World Arthritis Day: বিশ্ব আর্থ্রাইটিস ও বিশ্ব চক্ষু দিবস

লাইফস্টাইল

১২ই অক্টোবর – বিশ্ব আর্থ্রাইটিস দিবস (World Arthritis Day) আজ। বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো আমাদের দেশেও দিনটি পালিত হচ্ছে ।

১২ই অক্টোবর – বিশ্ব আর্থ্রাইটিস দিবস (World Arthritis Day) আজ। বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো আমাদের দেশেও দিনটি পালিত হচ্ছে । বেসরকারি পর্যায়ে বিভিন্ন কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। বিশেষজ্ঞরা বলেন, আর্থ্রাইটিসের প্রধান সমস্যা হলো টেনিস এলবো ও কনুই সমস্যা। জয়েন্ট বা অস্থিসন্ধির ব্যথার মূল কারণ এর প্রদাহ। বিশ্বব্যাপী আর্থ্রাইটিসে আক্রান্তের সংখ্যা অনেক। টেনিস এলবো একটি ইনজুরি জাতীয় সমস্যা। টেনিস খেলোয়াড়দের এ সমস্যা বেশি দেখা দেয় বলে একে টেনিস এলবো বলা হয়। ক্রিকেট, গল্‌ফ, ব্যাডমিন্টন, ভলিবল ও তীর নিক্ষেপ ইত্যাদি খেলায় ভুল টেকনিকের কারণে এ ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে।

বিশ্বের ৩৫ কোটি মানুষ বাতের সমস্যায় ভুগছেন বলে উল্লেখ করা হলেও এর কম-বেশি প্রভাবে ভুগতে হচ্ছে আরও বেশি মানুষকে। বিশেষজ্ঞদের মতে, বাত নির্দিষ্ট কোনো একটি রোগ নয়, এটি বেশ কয়েকটি সমপর্যায়ভুক্ত রোগের সমষ্টির বহির্প্রকাশ মাত্র। তবে সচরাচর অ্যানক্লোইজিং স্পনডিলাইটিস, গাউট, লুপাস, অস্টিও আর্থ্রাইটিস এবং রিউম্যাটয়েড আর্থ্রাইটিস মতো সমস্যাগুলিই বেশির ভাগ মানুষের কাছে পরিচিত। প্রায় ৭৮ শতাংশ ক্ষেত্রে এই অস্ট্রিও আর্থ্রাইটিস বা হাড় ক্ষয়ে যাওয়ার কারণে সমস্যার সৃষ্টি হয়। আবার শৈশবে খেলাধুলা না করা, ফাস্টফুড-জাঙ্কফুডের মেটালিক কালার এবং অন্যান্য উপাদান কম বয়সে আর্থ্রাইটিসের কারণ হয়ে দাঁড়ায়।

আজ আবার বিশ্ব চক্ষু দিবস। বর্তমানে বিশ্বের প্রায় ৩২ কোটি মানুষ চোখের রোগে ভুগছে। যাদের মধ্যে ৪ কোটি ৫০ লাখ মানুষ দৃষ্টিহীনতা এবং বাকি ২৬ কোটি ৯০ লাখ মানুষ স্বল্প দৃষ্টি কিংবা চোখের অন্য কোন রোগে ভুগছে। এদের প্রতি সহানুভূতি জানানোর জন্য প্রতি বছর অক্টোবর মাসের ১২ তারিখ ‘বিশ্ব দৃষ্টি দিবস’ হিসেবে পালন করা হয়। বর্তমান বিশ্বে সাড়ে চার কোটি মানুষ পুরোপুরি দৃষ্টি প্রতিবন্ধী। জরুরি ভিত্তিতে উদ্যোগ না নিলে ২০২০ সালের মধ্যে এ সংখ্যা প্রায় দ্বিগুণ হয়ে যাবে। কারণ বর্তমানে প্রতি ৫ সেকেন্ডে এক জন বয়স্ক মানুষ এবং প্রতি এক মিনিটে একটি শিশু অন্ধ হয়ে পড়ছে। জানা যাচ্ছে, বিশ্বের ৯০ শতাংশ অন্ধ মানুষের বাস উন্নয়নশীল দেশগুলোতে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সহায়তায় আন্তর্জাতিক অন্ধতা দূরীকরণ সংস্থার পরিচালনায় এই দিবসটি বহুল ভাবে প্রচারিত হয়ে ভিশন২০২০ পর্যন্ত উন্নীত করা হয়েছে। বিশ্বে প্রতি মিনিটে একজন শিশু অন্ধ হচ্ছে। বিশ্বব্যাপী ১৬ বছরের কম বয়সের অন্ধ শিশুর সংখ্যা প্রায় ১৫ লাখ। বাংলাদেশেও প্রায় ৫০ হাজার শিশু অন্ধ। চোখ বিষয়ক সাধারণ জ্ঞানের অভাব ও সচেতনতার কারণে দেশের বহু মানুষ চোখের নানাবিধ সমস্যায় ভুগছে। আশার কথা যায়, বিশ্বের অন্ধজনদের অন্তত ৮০ ভাগ অন্ধত্ব দূর করা সম্ভব অথবা সতর্কতা অবলম্বনের মাধ্যমে এ সংখ্যা কমানো সম্ভব। চক্ষুদান উৎসবেও সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *