Over 13 crore people getting added in world malnutrition list

বিশ্বের পুষ্টিহীন তালিকায় যুক্ত হবে বাড়তি ১৩ কোটি

লাইফস্টাইল

বিশ্বজুড়ে অপুষ্টিতে ভোগা (World malnutrition list) মানুষের সংখ্যা ১৩ কোটি ২০ লাখ বাড়তে পারে। শেষ পাঁচ বছরে এই সংখ্যা বেড়েছে ৬ কোটি। সম্প্রতি …

নিজস্ব সংবাদদাতা: গোটা পৃথিবীতেই নেমেছে সংকট। ভাইরাসকে প্রধান করে দেখানো হচ্ছে। কিন্তু এর সাথে আছে ভয়ংকর ক্ষুদার চেহারা। ২০১৯ সালে বিশ্বব্যাপী প্রায় ৬৯ কোটি মানুষ ক্ষুধার্ত ছিল। শেষ পাঁচ বছরে এই সংখ্যা বেড়েছে ৬ কোটি। সম্প্রতি জাতিসংঘের খাদ্য নিরাপত্তা ও পুষ্টি বিভাগ প্রকাশিত বাৎসরিক প্রতিবেদনে উঠে এসেছে এই ভয়াবহ তথ্য। বিশ্বজুড়ে অপুষ্টিতে ভোগা (World malnutrition list) মানুষের সংখ্যা ১৩ কোটি ২০ লাখ বাড়তে পারে।

Over 13 crore people getting added in world malnutrition list
Over 13 crore people getting added in world malnutrition list

ওই প্রতিবেদনের পূর্বাভাস, করোনার আরও বাজে আকার ধারণ করবে। ফলে চলতি বছর শেষে আরও ১৩ কোটির বেশি মানুষ চরম ক্ষুধার্তের তালিকায় নতুন করে যুক্ত হবে। অপুষ্টির বিচারে আফ্রিকার চেয়েও খারাপ জায়গাতে আছে এশিয়া। আফ্রিকায় অপুষ্টিতে ভোগা মানুষের সংখ্যা ২৫ কোটি। কিন্তু এশিয়ায় এই সংখ্যা ৩৮ কোটি ১০ লাখ।
বিশ্বে পুষ্টিহীন ও ক্ষুধার্ত মানুষের শতাংশের হিসাবে খুব বড় পরিবর্তন আসেনি, ৮.৯ শতাংশই আছে।

Metabolism: শরীরের প্রয়োজনীয় বিপাকক্রিয়া কীভাবে বাড়াবেন? আরও জানতে ক্লিক করুন …

এখানে বলা হয়েছে, গত ৫ বছর ধরে বিশ্ব জনসংখ্যা বৃদ্ধির সঙ্গে তাল মিলিয়ে বেড়েছে ক্ষুধার্তের সংখ্যা। এইমুহূর্তে মারাত্মক সংকটে ডেকে এনেছে অগণিত কৃষকের জীবনে। কঠিন এ সময়ের কারণে শহর ও গ্রামাঞ্চলে লাখ লাখ মানুষের খাদ্য সুরক্ষা ব্যাহত হয়েছে। লাখ লাখ মানুষ চাকরি হারানোতে খাদ্য সমস্যাটি দ্বিগুণ কঠিন হয়ে উঠছে। জানা যাচ্ছে, আগামী ২০৩০ সালের মধ্যে ক্ষুধামুক্ত পৃথিবীর লক্ষ্যমাত্রা অর্জনও সম্ভব নয়।
ক্ষুধা ও পুষ্টিহীনতা দূর করতে সুষম খাবার গ্রহণের ওপর জোর দেওয়া হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *