Pirates attack British oil tanker in Gulf of Aden

এডেন উপসাগরে জলদস্যুর শিকার ব্রিটিশ জাহাজ

আন্তর্জাতিক

মহাসাগরে জলদস্যুর হামলা। এক ব্রিটিশ কেমিক্যাল পণ্যবাহী জাহাজ এডেন উপসাগরে (Gulf of Aden) হামলার শিকার হয়েছে। যদিও সেই হামলা ব্যর্থ করে দেওয়া …

মহাসাগরে জলদস্যুর হামলা। এক ব্রিটিশ কেমিক্যাল পণ্যবাহী জাহাজ এডেন উপসাগরে (Gulf of Aden) হামলার শিকার হয়েছে। যদিও সেই হামলা ব্যর্থ করে দেওয়া হয়েছে। সশস্ত্র জলদস্যুরা হামলা চালিয়েছে বলে ট্যাংকার পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠান স্টল্ট ট্যাংকার জানিয়েছে।

Stolt Tanker UK
Stolt Tanker UK

জলদস্যুদের হামলা ব্যর্থ

জানা যাচ্ছে, গতকাল উপকূল থেকে ৭৫ নটিক্যাল মাইল দূরে জলদস্যুরা দুটি স্পিডবোট নিয়ে ব্রিটিশ জাহাজে হামলা চালায়। এরপর সেই অস্ত্রধারী জলদস্যুদের মোকাবেলায় ব্রিটিশ জাহাজ থেকেও গুলি চালানো হয়। এরফলে সেই জলদস্যুদের হামলা ব্যর্থ হয়েছে। সেই ব্রিটিশ জাহাজের সশস্ত্র রক্ষীরা কয়েক রাউন্ড গুলিবর্ষণ করার পর জলদস্যুরাও গুলি চালায়।

করোনার নিরপেক্ষ তদন্ত – একসাথে ভারত-সহ ৬২টি দেশ – আরও জানতে ক্লিক করুন …

পরে পরিস্থিতি বুঝে জলদস্যুরা পালিয়ে যায়। জলপথে এই ধরণের হামলা প্রায়ই ঘটে। জাহাজ থেকেও গুলি চালানো হয়েছে এবং স্টল ট্যাংকার যাত্রা অব্যাহত রাখে। তবে এই জোটের জাহাজ বলতে তিনি কোন জোটকে বুঝিয়েছেন তা পরিষ্কার নয়। কোনো মৃত্যুর খবর পাওয়া যায় নি।

স্লোভেনিয়া (Slovenia) প্রথম করোনামুক্ত ইউরোপীয় দেশ – আরও জানতে ক্লিক করুন …

হামলার কারণ

এই হামলার কারণ স্পট নয়। সামুদ্রিক নিরাপত্তা সূত্রগুলো বলছে, হামলার উঁচু মাত্রার ঝুঁকি থাকার কারণে ব্রিটিশ জাহাজটি একটি ট্রানজিট-করিডোরের ভেতর দিয়ে যাত্রা শুরু করে। তাকে আন্তর্জাতিক নেভাল ফোর্স পাহারা দিয়ে নিয়ে যেতে থাকে। সেক্ষেত্রে জলের যাত্রা অনেকটা নিরাপদ হয়। তবে এই ঘটনায় ব্রিটিশ জাহাজের কোনো নাবিক হতাহত হন নি। একাধিক গুলির আঘাতে ব্রিটিশ জাহাজের ব্রিজ সামান্য ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *