Russia warns US warship in sea of Japan

মার্কিন অস্ত্র বহনকারী রণতরীকে ধাওয়া করেছে রাশিয়া

আন্তর্জাতিক

ওয়াশিংটনের মিসাইল বিধ্বংসী অস্ত্র বহনকারী USS John S. McCain রণতরীকে ধাওয়া (Russia warns US warship) করা হয়েছে। …

নিজস্ব সংবাদদাতা: এরমধ্যে মস্কোর পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, সম্প্রতি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের একটি রণতরীকে ধাওয়া করেছে রাশিয়ার রণতরী। ওয়াশিংটনের মিসাইল বিধ্বংসী অস্ত্র বহনকারী USS John S. McCain রণতরীকে ধাওয়া (Russia warns US warship) করা হয়েছে। রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে এই তথ্য জানানো হয়েছে। রাশিয়ার জলসীমায় প্রবেশ করার জন্য, মস্কো ওই রণতরীকে ধাওয়া করে সেখান থেকে বার করে দেয়।

জানা যাচ্ছে, জাপান সাগরে রাশিয়ার জলসীমায় এই ঘটনা ঘটেছে। প্রথমে রাশিয়ার বিধ্বংসী রণতরী অ্যাডমিরাল ভিনগ্রেদভ মৌখিকভাবে সতর্ক করে দেয়। তারপর মার্কিন জাহাজ ওই এলাকা ত্যাগ করার কথা জানানো হয়। সতর্ক করার পর আমেরিকার যুদ্ধজাহাজ নিরপেক্ষ জলসীমায় চলে যায়। তবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে এখন পর্যন্ত এই বিষয়ে কিছু জানানো হয়নি। আসলে ঐতিহাসিকভাবে স্নায়ুযুদ্ধে জড়িয়ে থাকা দুই দেশের মধ্যে বর্তমানে এই ধরনের ঘটনা খুবই বিরল ও ইঙ্গিতবাহী।

Russia warns US warship in sea of Japan

যদিও সাত মাস আগে প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে মার্কিন ও রাশিয়ার যুদ্ধজাহাজ এইরকম কাছাকাছি এসেছিল। সেই সময় দুটি জাহাজের মধ্যে সংঘর্ষ এড়াতে মার্কিন জাহাজকে সুকৌশল অবলম্বন করতে হয়। এক বিবৃতিতে মধ্যপ্রাচ্যের জলসীমায় টহলরত মার্কিন নৌবাহিনীর পঞ্চম নৌবহর জানাচ্ছে, আন্তর্জাতিক সংকেতের নিয়ম মেনে সংঘর্ষের আশঙ্কা থেকে ইএসএস ফারাগাট পাঁচটি ছোট ছোট বিস্ফোরণ ঘটায়।

[ আরও পড়ুন ]  আফগান যুদ্ধে নিহত বা পঙ্গু ২৬ হাজার শিশু

এছাড়া সেইসময় রাশিয়ান জাহাজটিকে গতিপথ বদলের অনুরোধ করা হয়। পরিস্থিতি বুঝে রাশিয়া তাদের জাহাজের গতিপথ বদল করে নেয়। তবে সমুদ্রের মাঝে দাঁড়িয়ে, দুই দেশের এই ‘অপেশাদারি’ আচরণ কখনোই গ্রহণযোগ্য নয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *